অপরাধ

লালমনিরহাটের তিস্তা বাজারে শিব মন্দিরে চুরি,গ্রেফতার ১

  জাগোকন্ঠ ২০ নভেম্বর ২০২২ , ২:৩৬ অপরাহ্ণ

শাহরিয়ার কবির,লালমনিরহাট:

লালমনিরহাটের তিস্তা বাজারে শিব মন্দিরে চুরি হয়েছে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতের কোন এক সময় এই চুরির ঘটনা ঘটে । মন্দির কর্তৃপক্ষ সি সি টিভির ফুটেজ দেখে মনে করছেন ভোর রাতে এই চুরির ঘটনা ঘটে । দুর্বৃত্তরা মন্দিরের দান বাক্সের তালা ভেঙ্গে ভক্তদের দেয়া অর্থ চুরি করে নিয়ে যায় । এঘটনায় পুলিশ এক জনকে আটক করে এবং চুরি হওয়া টাকা উদ্ধার করে ।
জানা যায় শুক্রবার সকালে স্থানীয় লোকজন দেখে মন্দিরের গেট ও দান বাক্সের তালা ভাঙা এবং  শিব লিঙ্গ উপড়ে ফেলা হয়েছে । পরে মন্দির কর্তৃপক্ষ পুলিশে খবর দেয় । পুলিশ খবর পেয়ে তৎক্ষণাৎ  ঘটনা স্থলে ছুটে আসে এবং সি সি টিভির ফুটেজ সংগ্রহ করে ।
 লালমনিরহাট সদর থানা পুলিশ সি সি টিভির ফুটেজ দেখে জোর তৎপরতা চালিয়ে জেলার হাতি বান্ধা থানার গেন্দু কুড়ি গ্ৰাম  থেকে ফারুক হোসেন (২৮ ) নামে এক ব্যক্তিকে আটক করে । তার পিতার নাম তনু সরকার। বাড়ি ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার বরূনাগাঁও কালী কীর্ত্তন গ্ৰামে ।
মন্দির সভাপতি সুরেন্দ্র প্রসাদ গুপ্ত বলেন, এক বছর পর শিব মন্দিরের দান বাক্স খোলা হয় । সারা বছরে প্রায় ৩৩ ‘শ থেকে ৩৪ ‘শ টাকা পাওয়া যায় । এই টাকা দিয়ে মন্দির মেরামত, সংস্কার সহ মন্দিরের প্রয়োজনীয় কাজ করা হয়। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন , প্রায় এক বছর ৪ মাস সময় পার হয়ে গেছে দান বাক্স খোলা হয়নি । এতে করে তিনি ধারণা করছেন দান বাক্সে এবার প্রায় ৪ হাজারের মতো টাকা থাকতে পারে ।
 লালমনিরহাট সদর থানা পুলিশ শনিবার সকালে ধৃত আসামি ফারুক হোসেন (২৮) কে  তিস্তা বাজারে শিব মন্দিরে নিয়ে যায়। ধৃত আসামি ফারুক হোসেন দান বাক্স ভেঙ্গে টাকা চুরির কথা স্বীকার করে। আসামি ফারুকের দেখানো মতে , তিস্তা রেলওয়ে স্টেশনের পাশে একটি পুকুরের পাড়ে অবস্থিত একটি বাঁশ ঝাড়ে  পলিথিনের ব্যাগে মোড়ানো অবস্থায় মাটির নিচে পুঁতে রাখা টাকা উদ্ধার করে পুলিশ ।
মন্দির সভাপতি সুরেন্দ্র প্রসাদ গুপ্ত , সদর থানার ওসি এরশাদুল আলম , মন্দির কর্তৃপক্ষ, মিডিয়া কর্মী  ও স্থানীয় লোকজনের উপস্থিতিতে পলিথিনের ব্যাগ খোলা হয় । পরে উদ্ধারকৃত টাকা গণনা করলে নগদ ২,৩৭০ টাকা পাওয়া যায়।
এসময় ওসি এরশাদুল আলম উপস্থিত লোকজনকে বলেন, এধরনের কোন কাজ যেন কেউ না করেন, করলে পুলিশ প্রশাসনের হাত থেকে কেউ রক্ষা পাবে না।  তিনি  বলেন , এলাকায় কেউ যেন কোন মাদক ব্যবসা না করেন । কেউ যেন কখনো মাদক সেবন না করেন । কেউ মাদক ব্যবসা করলে তাকে আইনের হাতে তুলে দিবেন। ও সি এরশাদুল আলম উপস্থিত লোকজন এবং তাদের সন্তানদের মাদক সেবন না করার জন্য জোরালো আহ্বান জানান।
উল্লেখ্য , ধৃত আসামি ফারুক হোসেন বেশ কিছু দিন ধরে তিস্তা রেলওয়ে স্টেশন, তিস্তা বাজার সহ  আশেপাশের এলাকায় পাগলের বেশ ধরে ঘোরাঘুরি করত , এলোমেলো কথাবার্তা বলত। যার ফলে স্থানীয় লোকজন তাকে পাগল মনে করত ।
ও সি এরশাদুল আলম বলেন , এবিষয়ে পুলিশের তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে । এ ব্যাপারে থানায় একটি মামলা হয়েছে ।

আরও খবর: