জাতীয়

আ.লীগের দুঃসময়ের কাণ্ডারি ছিলেন সাজেদা চৌধুরী

  জাগো কণ্ঠ ডেস্ক ১২ সেপ্টেম্বর ২০২২ , ৬:২১ পূর্বাহ্ণ

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছেন, বর্ষীয়ান রাজনীতিক, সংসদ উপনেতা, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য, বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ডাকে সাড়া দিয়ে যেমনি মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছেন তেমনি মুক্তিযুদ্ধোত্তর ‘বাংলাদেশ নারী পুনর্বাসন বোর্ড’ এর পরিচালকের গুরু দায়িত্বও পালন করেছেন।

সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে সোমবার (১২ সেপ্টেম্বর) তিনি এ কথা বলেন।

মেয়র ব্যারিস্টার শেখ তাপস বলেন, তিনি আওয়ামী লীগের দুঃসময়ের কাণ্ডারি ছিলেন। পঁচাত্তর পরবর্তী আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে তিনি দুঃসময়ে দৃঢ়তার সঙ্গে দলকে নেতৃত্ব দিয়েছেন।

আমৃত্যু তিনি আওয়ামী লীগ, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, শেখ হাসিনা এবং সর্বোপরি মহান মুক্তিযুদ্ধের অনন্য এক অনুগত সেনানী ছিলেন। তার মৃত্যুতে দেশ ও জাতির অপূরণীয় ক্ষতি হলো। আমরা হারালাম সত্যিকারের একজন অভিভাবক। তার নেতৃত্বের বলিষ্ঠতা, দেশের প্রতি দায়িত্বশীল কর্মের অনুপ্রেরণা হয়ে তিনি আমাদের মাঝে বেঁচে থাকবেন।

অন্যদিকে সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেছেন, সাজেদা চৌধুরী ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেন। মুক্তিযুদ্ধে অনন্য ভূমিকা রাখার স্বীকৃতিস্বরূপ তিনি স্বাধীনতা পুরস্কারে ভূষিত হন। স্বাধীনতা পরবর্তী বাংলাদেশের পুনর্গঠনে গ্রামীণ উন্নয়ন ও শিক্ষায় বিশেষ অবদান রেখেছেন তিনি। তার অবদান ইতিহাসে স্বর্ণাক্ষরে লেখা থাকবে।

আরও খবর: