খেলাধুলা

স্বস্তি নিয়ে বিরতিতে গেল বাংলাদেশ দল

  জাগোকণ্ঠ ডেস্ক ৮ এপ্রিল ২০২২ , ১:৫০ অপরাহ্ণ

ছবি: সংগৃহীত

ডারবান টেস্ট হারের পর পোর্ট এলিজাবেথে ঘুরে দাঁড়ানোর প্রত্যয়। এ লক্ষ্যে দুই পেসারের সঙ্গে একাদশে দুইজন স্পিনার রেখেছে বাংলাদেশ দল। তবুও ফায়দা হচ্ছিল না। আগের টেস্টের মতো এই ম্যাচের প্রথম দিনেও ব্যাট হাতে আধিপত্য দক্ষিণ আফ্রিকার ব্যাটসম্যানদের। গলার কাটা হয়ে ঝুলে থাকা ডিন এলগারকে ফেরানোর পর থিতু হয়ে গেছিলেন কিগান পিটারসেন। চা বিরতিতে যাওয়ার আগে তাকে ফিরিয়ে সফরকারী শিবিরে খানিক স্বস্তি ফেরান তাইজুল ইসলাম।

প্রথম দিনের দ্বিতীয় সেশন শেষে ৩ উইকেট হারিয়ে স্বাগতিকদের সংগ্রহ ১৯৯ রান। যেখানে টেম্বা বাভুমা ৩৩ এবং রায়ান রিকেলটন ৭ রানে অপরাজিত আছেন।

প্রথম সেশনে ১ উইকেট হারিয়ে স্কোর বোর্ডে ১০৭ রান জমা করে দক্ষিণ আফ্রিকা। ৫ রানের অবিচ্ছেদ্য পার্টনারশিপে এলগার ৫৯ আর পিটারসেন ২৪ রানে দ্বিতীয় সেশনের খেলা শুরু করেন। তবে মধ্যাহ্নভোজ থেকে ফিরে খুব বেশি সুবিধা করতে পারেননি প্রোটিয়া দলপতি। বাঁহাতি স্পিনার তাইজুলে কাটা পড়েন ব্যক্তিগত ৭০ রানে।

অফ স্টাম্পের বাইরে একটু জোরের উপর বল করেন তাইজুল। পিছিয়ে গিয়ে থার্ড ম‍্যান দিয়ে খেলতে চেয়েছিলেন এলগার। ব‍্যাটের কানা ছুঁয়ে জমা পড়ে লিটন দাসের গ্লাভসে। ভাঙে ১২৫ বল স্থায়ী ৮১ রানের পার্টনারশিপ। সিরিজে টানা তিন ইনিংসে পঞ্চাশ ছুঁয়া এই বাঁহাতি ৮৯ বলে ১০ চারে থামলেন ৭০ রানে।

এলগারে ফিরে যাওয়ার পর নতুন ব্যাটসম্যান বাভুমাকে নিয়ে জুটি জমিয়ে তোলেন পিটারসেন। ইনিংসের ৩৪তম ওভারে এবাদত হোসেনের বলে টানা তিন চারে পঞ্চাশ রানের কোটা পূর্ণ করেন এই ডানহাতি। ৮ চারে ৭৪ বলে অর্ধশতকের স্বাদ পান। নিজের ইনিংসটি অবশ্য আর বেশিদূর টানতে পারেননি পিটারসেন। তাইজুলের দ্বিতীয় শিকার হন ব্যক্তিগত ৬৪ রানে।

অর্ধশতক করার পর দুই পাশ থেকে করা বাংলাদেশ দলের দুই স্পিনারের টানা ডটে রানের জন‍্য ছটফট করতে থাকেন পিটারসেন।এরিয়ে গিয়ে খেলতে চেয়েছিলেন তাইজুলকে। তবে ব‍্যাটে খেলতে পারেননি, লাগে প‍্যাডে। পরে দেখা গেছে, মিডল স্টাম্পে পড়ে বল যাচ্ছিল লেগ স্টাম্পে। পাল্টায় আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত। ভাঙে ১০৬ বল স্থায়ী ৫১ রানের জুটি। এই উইকেট নিয়ে সফরকারী শিবিরে স্বস্তি ফেরান তাইজুল।

পরে ৩ উইকেট হারিয়ে ১৯৯ রানের সংগ্রহ নিয়ে চা বিরতিতে গেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। যেখানে টেম্বা বাভুমা ৩৩ এবং রায়ান রিকেলটন ৭ রানে অপরাজিত আছেন।