ঢাকা   শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১, ০৬:২৮ পূর্বাহ্ন

  মিরপুরে টিসিবি'র সেবা বন্ধ | জাগোকন্ঠ

   জাগোকণ্ঠ, ডেস্ক



প্রকাশিতঃ সোমবার, ১৮ অক্টোবর ২০২১, ০৬:১০ পিএম

মিরপুর প্রতিনিধি:

দ্রব্যমূল্যের উর্দ্ধগতির মাঝেই রাজধানী মিরপুরে টিসিবি'র সেবা বন্ধ। দ্রব্যমূল্যের উর্দ্ধগতিতে যখন নিন্ম ও মধ্যবৃত্তের জীবন চালানোই কঠিন হয়ে উঠেছে, তখনই দরিদ্র জনগোষ্টির জন্য সরকারী ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) কর্তৃক কমমূল্যের পন্য সেবা অপরিহার্য হয়ে উঠেছে। এমন পরিস্থিতিতেই রাজধানীর সবচেয়ে বেশী নিন্মবিত্ত ও মধ্যবৃত্ত জনগনের আবাসস্থল মিরপুরে কয়েকটি স্থানে টিসিবি তাদের পন্য বিক্রি বন্ধ করে দিয়েছে। এই বিষয়ে যদিও টিসিবি'র বক্তব্য স্থানীয়দের অভিযোগের প্রেক্ষিতেই তারা পন্য বিক্রি বন্ধ করেছে। কিন্তু, স্থানীয়দের দাবী ভিন্ন। স্থানীয়রা বলছে, এই এলাকায় টিসিবি'র যেহেতু সুবিধাভূগী বেশী, তাই তারা এই পদক্ষেপ নিয়েছে। কেননা, বেশী বিক্রি হলে পরবর্তীতে তারা এই পন্য চুরী করে বিক্রি করে যে লাভ হয়, তার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।

রাজধানীর মিরপুরের ৭ থানা এলাকার কোথায়ও সব সময় টিসিবি পন্য বিক্রি করতে দেখা যায়নি। ১৮ অক্টোবর দুপুর ২টা থেকে ৩টা পর্যন্ত মিরপুরের বিভিন্ন অলিগলিতে সরজমিন ঘুরেও টিসিবি'র পন্য বিক্রি করতে দেখা যায়নি। যদিও পল্লবী এলাকায় পুরোনো থানার সামনে ১ ঘন্টার জন্য বিক্রি করার তথ্য পাওয়া গেছে। এছাড়া মিরপুর ১ নাম্বার এলাকায়ও টিসিবি'র পন্য বিক্রি হয়েছে বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

কাফরুল এলাকার বাসিন্দা রেজাউল করিম রেজা জানান, আমাদের এই এলাকায় নিন্ম ও মধ্যবৃত্ত মানুষের আবাসস্থল। এখানে টিসিবি'র সুবিধাভূগীও অনেকবেশী ছিল। তাই টিসিবি'র এজেন্টরা নিজেরা ষড়যন্ত্র করে টিসিবিতে কল করে আমাদের এলাকার সকল টিসিবি ট্রাক বন্ধ করে দিয়েছে। কেননা, বর্তমানে দ্রব্যমূল্যের উর্দ্ধগতিতে আমাদের এলাকার স্বল্প আয়ের মানুষের জীবনধারনই কঠিন হয়ে উঠেছে। এই প্রেক্ষিতে টিসিবি'র ট্রাকে থাকত লম্বা লাইন। ফলে, সকল পন্যই বিক্রি হয়ে যেত। তারা পরবর্তীতে মার্কেটে আর লাভে বিক্রি করতে পারত না। এই জন্য আমাদের এলাকা থেকে ট্রাক প্রত্যাহার করা হয়েছে।

রেজা আরো বলেন, নির্দিষ্ট এলাকায় সমস্যা হলে, অন্য এলাকায় তো বিক্রি করতে পারত। কিন্তু, তাও তো বিক্রি করছে না!

তিনি প্রশ্ন তুলে বলেন, টিসিবি'র পন্য তো সবসময় কমমূল্যেই বিক্রি হয়। তাহলে আগে দোকানদাররা কি কেউ কিনে নিত না? এখন তাহলে কেন নিচ্ছে। প্রকৃত সত্য হলো, মার্কেটের দোকানদারদের সাথে সব সময় টিসিবি'র এজেন্টদের চুক্তি থাকে। তারা পন্য কিনে নিয়ে যেত। এখন নিতে পারছে না তাই সমস্যা। এছাড়া রেজা আরো উল্লেখ করেন, এখন যেহেতু সাধারণ মানুষ দ্রব্যমূল্যের উর্দ্ধগতির কারণে বেশী নিচ্ছে তাই সমস্যা। না হলে কেউ কখনও কল করে বলবে, তাদের এলাকায় টিসিবি'র পন্য লাগবে না! এটা কি পাগলেও বিশ্বাস করবে?

টিসিবি'র বিষয়ে পল্লবীর মিল্লাত ক্যাম্পের পাশের থাকা ডব্লিউ নামে এক ব্যক্তি বলেন, টিসিবি'র পন্য ক্যাম্প ও বস্তি এলাকায় সবচেয়ে বেশী প্রয়োজন। কিন্তু, আমরাই টিসিবি'র পন্য পাই না। টিসিবি'র ট্রাক যে কখন কোথায় থাকে তা এক মাত্র ওরাই জানে। আমাদের মতো গরীব লোকের পকেটে কি সব সময় টাকা নিয়ে চলি যে টিসিবি'র পন্য চোখের সামনে পড়লেই কিনতে পারব?

পল্লবী থানার পাশের বেগুন টিলা বস্তিতে থাকা শাহাজাদী জানান, টিসিবি'র ট্রাক আমি কখনও পাই না। যদিও কখনও খবর পাই টিসিবি'র ট্রাকে পন্য বিক্রি হচ্ছে, আমি টাকা জোগাড় করে পৌছাতে পৌছাতেই ওরা সেখান থেকে চলে যায়। টিসিবি'র ট্রাকের পন্য পেয়েছে, এমন ভাগ্যবান লোক পল্লবীতে খুজে পাওয়া কষ্ট। যখন, বাজার দাম ঠিক থাকে তখন কিন্তু টিসিবি'র ট্রাকের দেখা ঠিকই পাই।

এই বিষয়ে জানতে চাইলে সপ্তাহিক নতুন বার্তা'র পক্ষ থেকে ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) এর উর্দ্ধতন কার্যনির্বাহী ও তথ্য প্রদানকারী কর্মকর্তা মোঃ হুমায়ন কবির বলেন, সাধারণ মানুষ আমাদের কল করে বলেছে, কিছু মহিলা প্রতিদিন নিচ্ছে। তাদের কারণে আমরা নিতে পারছি না। আমাদের এখানে টিসিবি'র পন্য লাগবে না। তাই মিরপুর ১৪, ক্যান্টনমেন্ট ও মিরপুর ১০ এলাকার ট্রাক প্রত্যাহার করা হয়েছে। তিনি ভবিষ্যতে আবার নির্দিষ্ট স্থান বাদ দিয়ে চালু করার প্রতিশ্রুতিও দেন।

মিরপুরের অন্য এলাকায় কোন গাড়ী না থাকা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, গাড়ী একদিন এক জায়গায় থাকে। ওয়েব সাইট দেখে গাড়ী কোথায় থাকবে জেনে নিতে বলেন। এই সকল অভিযোগের বিস্তারিত জানতে ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) এর প্রধান কর্মকর্তা (বাণিজ্যিক) মোঃ শেখাবুর রহমানকে কল করা হলে, তিনি কথা বলাতে অস্বীকৃতি জানান। তিনি আরো উল্লেখ করেন, হুমায়ন কবিরের কথাই টিসিবিতে স্বতঃসিদ্ধ।



শেয়ার করুন:


আপনার মন্তব্য লিখুন

সম্পাদক ও প্রকাশক: মো.আলী মুবিন,
ঠিকানা:৫৫/২,পুরানা পল্টন লেন (৩ তলা) ঢাকা-১০০০ ।
মোবাইল : ০১৬৮-২০৮৩৫০৭, ০১৭২-৪২৫০১২৯
E-mail : jagokantha@gmail.com, newsjagokantha@gmail.com
Developed By Jagokantha
বিঃ দ্রঃ উক্ত অনলাইন নিউজ পোর্টালটির সকল পেপার্সের কার্যদি প্রক্রিয়াধীন আছে।