ঢাকা   সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০১:৪৩ অপরাহ্ন

  সংকটাপন্ন অবস্থায় অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন |জাগোকণ্ঠ

   জাগোকণ্ঠ, ডেস্ক



প্রকাশিতঃ বৃহস্পতিবার, ০৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০১:৩৪ পিএম

জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে রয়েছেন হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে থাকা সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি, ফৌজদারি আইন বিশেষজ্ঞ অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন। বর্তমানে তার শারীরিক অবস্থা সংকটাপন্ন।


বৃহস্পতিবার (৯ সেপ্টেম্বর) চিকিৎসকদের উদ্ধৃতি দিয়ে জুনিয়র অ্যাডভোকেট মো. মাসুদ রানা গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেছেন, খন্দকার মাহবুব হোসেনের কিডনি, ব্রেনসহ অন্যান্য অঙ্গপ্রত্যঙ্গ এখন স্বাভাবিকভাবে কাজ করছে না।


এ দিকে যুক্তরাষ্ট্র থেকে তার তিন সন্তান এরই মধ্যে দেশে চলে এসেছেন। স্ত্রী ড. ফারহাত হোসেনও হাসপাতালে অবস্থান করছেন। তার পরিবার খন্দকার মাহবুব হোসেনের জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছে।


এর আগে শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটায় বুধবার (৮ সেপ্টেম্বর) বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেনকে রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। এরপর দ্রুত চিকিৎসকরা তাকে লাইফ সাপোর্ট দেন।


গত ১৬ আগস্ট মহামারি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল।


সুপ্রিম কোর্টের সিনিয়র আইনজীবী অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন ১৯৩৮ সালের ২০ মার্চ জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ১৯৬৭ সালের ৩১ জানুয়ারি আইনজীবী হিসেবে অন্তর্ভুক্ত হন। এরপর একই বছরের ২০ অক্টোবর তিনি হাইকোর্টের আইনজীবী হিসেবে তালিকাভুক্ত হন।


১৯৭৩ সালে দালাল আইনে যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের সময় চিফ প্রসিকিউটর হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন এ আইনজীবী।


চারবার সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি এবং দুইবার বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন খন্দকার মাহবুব হোসেন। ৫৪ বছরের আইন পেশায় দেশের প্রথম সারির সব রাজনীতিবিদের মামলা পরিচালনা করেছেন এ আইনজীবী। বর্তমানে তিনি বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।



শেয়ার করুন:


আপনার মন্তব্য লিখুন

সম্পাদক ও প্রকাশক: মো.আলী মুবিন,
ঠিকানা:৫৫/২,পুরানা পল্টন লেন (৩ তলা) ঢাকা-১০০০ ।
মোবাইল : ০১৬৮-২০৮৩৫০৭, ০১৭২-৪২৫০১২৯
E-mail : [email protected], [email protected]
Developed By Jagokantha
বিঃ দ্রঃ উক্ত অনলাইন নিউজ পোর্টালটির সকল পেপার্সের কার্যদি প্রক্রিয়াধীন আছে।