1. mdmobinali112@gmail.com : admin2020 :
  2. mdalimobin112@gmail.com : Ali Mobin : Ali Mobin
বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ০৪:৩৪ পূর্বাহ্ন

রাজধানীর গুলিস্তানে ওয়ার্ড কাউন্সিলরের চাঁদাবাজির প্রতিবাদে মানববন্ধন |জাগোকণ্ঠ

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২৫ জুন, ২০২০

নিজস্ব প্রতিনিধি:

রাজধানীর গুলিস্তানে ওয়ার্ড কাউন্সিলরের চাঁদাবাজির প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী ও পরিবহন মালিক-শ্রমিকরা। আজ (২৫ জুন) বিকেলে স্টেডিয়াম এলাকায় এই মানববন্ধন কর্মসুচি পালন করা হয়। মানববন্ধনকারীরা ১৩ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর এনামুল হক আবুল ও তার সহযোগী জসিম উদ্দিন, মনির হোসেন মনা ও সামিউল আবেদ সুমনের হাত থেকে বাঁচার আকুতি জানান ।

সোমবার রাজধানীর গুলিস্তানে চাঁদার দাবিতে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ রুটে চলাচলকারী উৎসব পরিবহনের কাউন্টার ভাঙচুর করে ক্যাশ বাক্স লুট করে নিয়ে যায় কতিপয় সন্ত্রাসীরা।

এ ব্যাপারে এনামুল হক আবুল জাগোকণ্ঠকে বলেন, ‘ চাঁদাবাজির সাথে আমাদের কোনই সম্পৃক্ততা নেই। বিগত ১২ বছর যারা চাঁদাবাজি করেছে তারাই এখনও চাঁদাবাজি করছে। আমরা চাঁদাবাজি, মাদক ও সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের বিরুদ্ধে সোচ্চার।’

উৎসব পরিবহনের পরিচালক মো. কাজল বলেন, ‘সোমবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে ১৩ নম্বার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. জসিমউদ্দিন অর্ধশতাধিক ক্যাডার নিয়ে বাইতুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটে অবস্থিত পরিবহনটির টিকিট কাউন্টারে এসে প্রথমে মোটা অঙ্কের চাঁদা দাবি করেন। সরকার পরিবহন চাঁদাবাজি বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে, তাই আমরা এখন আর কাউকে চাঁদা দেই না- এ কথার বলার পর আওয়ামী লীগের ওই নেতা ও তার সঙ্গীরা কাউন্টারের লোকজনকে বেধড়ক পিটিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। এ সময় আওয়ামী লীগ নেতা জসিমউদ্দিন বলেন, পরিবহন ব্যবসা করতে হলে অবশ্যই চাঁদা দিতে হবে। কাউন্টার খুলতে হলে ১৩ নম্বর ওয়ার্ডের কমিশনার এনামুল হক আবুলের অনুমতি নিতে হবে।’

স্থানীয়রা জানায়, ‘এনামুল হক আবুলের নির্দেশে পল্টন-গুলিস্তানের ফুটপাতে ব্যাপকহারে চাঁদাবাজি চলছে। অনেকে ইতিমধ্যে চাঁদা দিয়ে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছেন। আর কেউ কেউ চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় তারা ব্যবসা করতে পারছেন না। এরই প্রতিবাদে স্থানীয় পরিবহন মালিক শ্রমিক ও হকাররা আজ বুধবার বিকেল ৫ টার দিকে জাতীয় স্টেডিয়ামের এক নম্বর গেটে মানববন্ধন কর্মসুচি পালন করেন।’

মানববন্ধন কর্মসুচিতে বক্তরা বলেন, ‘স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দিন এবং তাদের সহযোগিদের অত্যাচারে তারা এখন অতিষ্ট।’

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..