অর্থনীতি

নিষেধাজ্ঞা শেষ, ইলিশে খুশি ক্রেতা-বিক্রেতা

  জাগোকন্ঠ ২৯ জুলাই ২০২২ , ৯:১৫ পূর্বাহ্ণ

টানা ৬৫ দিনের নিষেধাজ্ঞা শেষে সাগরে ইলিশ ধরা শুরু হয়েছে। জেলেদের জালে ধরা পড়ছে ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ। পাইকারি বাজার পেরিয়ে ইতোমধ্যে ইলিশের ঘ্রাণে রমরমা খুচরা বাজার।

এদিকে চাহিদা অনুযায়ী পর্যাপ্ত যোগান থাকায় বাজারে ইলিশের দাম ক্রেতাদের নাগালের মধ্যে রয়েছে। তাই নিজের পছন্দমতো মাছটি কিনে বাড়ি ফিরছেন ক্রেতারা। আবার বিক্রি বাড়ায় খুশি বিক্রেতারও।

শুক্রবার (২৯ জুলাই) সকালে রাজধানীর কারওয়ান বাজার ঘুরে ক্রেতা-বিক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে এসব তথ্য জানা যায়।

সরেজমিনে দেখা যায়, ব্যবসায়ীরা সাজিয়ে রেখেছেন রূপালী ইলিশ। বাজারে ৫০০ গ্রাম থেকে শুরু করে দেড় ওজনের প্রচুর ইলিশ রয়েছে। দামে দরে মিললেই ইলিশ নিয়ে ফিরছেন ক্রেতারা। কেউ কিনছেন এক কেজি, কেউবা দুই কেজি। আবার অনেককে একসঙ্গে ৫-৭ কেজি ইলিশ কিনতেও দেখা গেছে।

খুচরা বাজারের তথ্য অনুযায়ী, বাজারে দেড় কেজি ওজনের ইলিশ ১৭০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া এক কেজি ওজনের ইলিশের দাম ১২০০ টাকা। ৯০০ গ্রাম ওজনের ইলিশগুলো বিক্রি হচ্ছে এক হাজার টাকায়।

কারওয়ান বাজার থেকে মোট ১২ হাজার টাকার ইলিশ কিনেছেন আনোয়ার হোসেন। তিনি বলেন, গত এক মাসের তুলনায় ইলিশের দাম কেজি প্রতি ৪০০-৫০০ টাকা কমেছে। আর মৌসুমের ইলিশের স্বাদও ভালো। তাই একটু বেশিই কিনেছি।

দিলরুবা বেগম নামে আরেক ইলিশ ক্রেতা বলেন, বাজারে প্রচুর ইলিশ এসেছে। এখনকার ইলিশ দেখতে সুন্দর এবং দামেও কম। দুই কেজি কিনেছি। খেয়ে ভালো লাগলে আরও কিনব।

এদিকে ইলিশের বেচা-বিক্রি নিয়ে খুশি বিক্রেতারা। সামনে দাম আরও কমবে বলেও জানিয়েছেন তারা।

কারওয়ান বাজারের ইলিশ বিক্রেতা (খুচরা) মো. শুকুর আলী বলেন, চাঁদপুর এলাকায় প্রচুর ইলিশ ধরা পড়ছে। ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ ঢাকায় আসায় দাম কমেছে। সামনে দাম আরও কমবে। কেজি প্রতি ১০০-২০০ টাকা দাম কমার সম্ভাবনা রয়েছে।

আরেক ইলিশ বিক্রেতা রমিজ উদ্দিন বলেন, ইলিশের ভরা মৌসুম শুরু হয়েছে। আগামী ২-৩ মাস বাজারে প্রচুর ইলিশ আসবে। যোগান অনুযায়ী দামও ধীরে ধীরে কমতে থাকবে। এছাড়া মৌসুমি ইলিশের স্বাদ ও গন্ধ বছরের অন্য সময়ের চেয়ে ভালো থাকে। তাই এই সময়ে ক্রেতারাও ইলিশ বেশি কিনে থাকেন। আর বিক্রি বেশি হওয়ায় আমাদেরও ভালো লাভ হয়।